​ঘাটাইলে দুই প্রধান শিক্ষককে মারধর।। 

24

সহকারি শিক্ষা কমকর্তাকে হুমকি টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দুই প্রধান শিক্ষককে পিটিয়ে আহত করেছে এলাকার কতিপয় সন্ত্রাসীরা। কমিটি গঠনকে কেন্দ্র করে আজ ১৯ জুন সোমবার এ ঘটনা ঘটে। আহত দুই প্রধান শিক্ষক হল উপজেলার নূরনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাহবুবুর রহমান এবং বারইপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আকবর হোসেন। এ ঘটনায় দায়িত্বপ্রাপ্ত সহকারি শিক্ষা কর্মকর্তা জি এম ফুয়াদ মিয়াকে হুমকি প্রদান করেছে তারা। দুটি ঘটনা নিয়ে স্ব স্ব বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক থানায় পৃথক অভিযোগ দায়ের করেছেন। দুই প্রধান শিক্ষই ঘাটাইল উপজেলা স্বস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।
লিখিত অভিযোগ থেকে জানা যায়, উপজেলার ভাবনদত্ত গ্রামের আজাহারুল ইসলাম রাজা বারইপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদের কমিটি গঠন নিয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কাছে অভিযোগ করেন।সেই অভিযোগের পেক্ষিতে গতকাল সোমবার সকালে উপজেলা সহকারি শিক্ষা কর্মকর্তা জি এম ফুয়াদ মিয়া বিষয়টি তদন্তের জন্য বারইপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যান। তদন্ত চলাকালিন সময়ে সহকারি শিক্ষা কর্মকর্তার উপস্থিতে আজাহারুল ইসলাম রাজা তার দলবল নিয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে মারধর করে এবং হত্যা করার হুমকি দেয়। এ সময় সে সহকারি শিক্ষা কর্মকর্তাকে শাসায় এবং তার পক্ষে তদন্ত প্রতিবেদন দিতে বল প্রয়োগ করে ।

এদিকে গত ১৮ জুন রোববার টাঙ্গাইল জেলা পরিষদের সদস্য সুলতান মাহমুদ, উপজেলা সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা জিএম ফুয়াদ মিয়া সহ এলাকার গণমান্য ব্যাক্তিবর্গের উপস্থিতিতে নূরনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পরিচালনা পরিষদের বিধি মোতাবেক কমিটি গঠিত হয়। সকলের উপস্থিতিতে মোঃ জসিম উদ্দিনকে সভাপতি করে ১১ সদস্যের একটি কমিটির নাম ঘোষনা করা হয়। এতে বাবর আলী সভাপতি নির্বাচিত হতে না পারায় ক্ষিপ্ত হন। কমিটি ঘোষনা করে সকলে চলে গেলে বাবর আলী তার দল বল নিয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মুহবুবুর রহমানকে মারধর করে।

দুটি ঘটনার বিষয়ে সহকারি শিক্ষা কর্মকর্তা জি এম ফুয়াদ মিয়া ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে করে জানান, বারইপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ঘটনাটি আমার উপস্থিতিতে ঘটেছে এবং নূরনগর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ঘটনাটি আমি চলে আসার পর ঘটেছে । এ বিষয়ে তদন্ত প্রতিবেদন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে জমা দেয়া হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবুল কাশেম মোহাম্মদ শাহীন জানান,বিষয়টি অত্যন্ত উদ্বেগজনক। দোষীদের দ্রুত আইনের আওতায় আনা হবে।

এদিকে এ ঘটনার প্রতিবাদে আগামীকার ২০ জুন মঙ্গলবার প্রাথমিক শিক্ষক সমিতি ঘাটাইল উপজেলা শাখা উপজেলা পরিষদের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচির ডাক দিয়েছে।

জুয়েল হিমু

ভিন্নবার্তা, টাংগাইল

ভাগ